যেদিন আমরা সাধারণ হবো - সেদিন পরিবর্তন অবশ্যই আসবে। মনে রাখতে হবে বিপদে বন্ধুর পরিচয়।

কামরুল হাসান আহমেদ ২৪ মার্চ,২০২০ ৬৫ বার দেখা হয়েছে লাইক কমেন্ট ৫.০০ ()

যেদিন_আমরা_সাধারন_হবো


সোসাল মিডিয়া ও পত্রিকা মারফত জানতে পারলাম 

বাংলাদেশকে  কয়েক লাখ মাস্ক  , কিট এবং কিছু নিরাপত্তামুলক পোশাক ডোনেট করবে জ্যাক মা।  

ভালো কথা।

কিন্তু আমার দেশের উদীয়মান মাল্টিন্যাশনাল কোম্পানী গুলো কি করছে , যে পাবলিকগুলো দিয়ে তারা এতোদিন ব্যবসা করলো তাদের এই কঠিন মুহুর্তে তারা চুপ কেন? 


পৃথিবীর সবচেয়ে বড় এনজিও নাকি আমাদের দেশে প্রতিষ্ঠিত ব্র্যাক? ?? 

দেশের প্রান্তিক পর্যায়ের রিকশাচালক দিনমজুর  ngo  গুলোর কাছে ঋণে আবদ্ধ।  

এই লোকগুলো কিস্তির টাকা কোথা থেকে  শোধ করবে? কোটি কোটি শ্রমজীবী মানুষের কি হবে? ? যারা দিন আনে দিন খায় তাদের কি হবে? ? 


অলরেডি হকারদের অবস্থা ভয়াবহ,  তাদের জিনিস পত্র বিক্রি বন্ধ হয়ে গেছে। এদিকে আবার খাদ্য দ্রব্যের দামও মাশাল্লাহ উপরের দিকে যাচ্ছে।


জনগন এতো দুর্বল কেন? ?! ! 


প্রতিটা দুর্যোগে কেন সবসময় জনগন ভুক্তভোগী।  প্রতিবার কেন ব্যবসায়ীরা আপনাকে আমাকে পুতুলের মতো ব্যবহার করে, বাধ্য করে।  অথচ দেখার কেউ নেই বলার কেউ নেই।  

এগুলো নিয়ে ভাবতে হবে,  নিজেকে প্রশ্ন করতে হবে।

সমস্যা নিয়ে আলোচনা না করলে সেই সমস্যা কখনও সমাধান হবে না।  


আমরা কেন সংঘবদ্ধ না,  কারা আমাদের ব্লাইন্ড করে রাখতে চায়।  কারা আমাদের সংঘবদ্ধ হতে বাধা দেয়।

আপনাকে এসব নিয়ে ভাবতে হবে।  ভবিষ্যৎ নিয়ে ভাবতে হবে।  


আজকের সমস্যা কাটিয়ে উঠলে আপনি এসব নিয়ে ভাবা বাদ দিবেন?  কালকে তো আবার একই সমস্যায় পরবেন।  


এটা রাজনৈতিক কোনো বিষয় না । এটা আমাদের বিষয় ,আমাদের মানে সাধারন মানুষদের বিষয়।  

আপনি আওয়ামিলীগ করেন, বিএনপি করেন, জাতীয়পার্টি করেন যেই দলই করেন বাজারে আপনাকে ঠিকই একই মূল্যে দ্রব্য কিনতে হয়।  দিন শেষে আপনি সাধারন জনগন।  

আমাদের ভাবনাটা এই জায়গা থেকে হতে হবে।  

নচেৎ এই সিস্টেমের পরিবর্তন হবে না।


চেয়ারের মালিক পাল্টে যাবে কিন্তু সিস্টেম আগের মতোই থেকে যাবে ।


আপনার প্রশ্ন করার সামর্থ্য নেই?  তাহলে আলোচনা করুন!  তার সমর্থ্যও নেই?  তাহলে মনের ভিতর অন্তত এটা রাখুন যে আপনি এই অনিয়ন্ত্রিত সিস্টেমের পরিবর্তন চান।


আমাদের কাজ গুলোতে এই চিন্তার প্রভাব ফেলতে হবে।  দিন হঠাৎ বদলে যায় না।  তবে বদলানোর চেস্টা শুরু করলে একদিন ঠিকই বদলে যায় । 


আমরা সচেতনতা তো বহুদুর, করোনা নিয়ে টঙের দোকানে তর্ক করে মাডার করে ফেলি।  "এই সেন্স লইয়া আমরা কি করিব?"  


প্রশাষনের উদ্দেশ্যে আমার কিছু বলার নেই।  শুধু  অনুরুধ দুর্বলদের খেয়াল রাখুন।  আমরা জনগন খুবই দুর্বল।   

তবে দুর্বলদের নিয়ে  ভারতের আমির আজিজের লেখা একটা বাক্য খুব জনপ্রিয়ো  হয়েছিল 


" sab yaad rakha jayega" 


( করোনা থেকে রক্ষায় নিজ থেকে সচেতনতা গড়ে তুলুন। একে অন্যের পাশে দাড়ান।  যে রোগের মেডিসিন নেই সেই রোগ মোকাবেলার একমাত্র উপায় সতর্কতা সচেতনতা) 

কামরুল হাসান আহমেদ  
ডিস্ট্রিক্ট এম্বাসাডর
বগুড়া।    

মতামত দিন
সাম্প্রতিক মন্তব্য
মোঃ মেরাজুল ইসলাম
২৪ মার্চ, ২০২০ ০৪:৪১ অপরাহ্ণ

মুজিব বর্ষের শুভেচ্ছা ও ভালোবাসা রইলো । চমৎকার কনটেন্ট নির্মাণের জন্য রেটিং, লাইক, কমেন্ট ও অভিনন্দন। আমার বাতায়ন বাড়ি আমন্ত্রণ রইলো । ভালো থাকুন সব সময় । শুভ কামনা রইলো আপনার জন্য।


আব্দুল্লাহ আত তারিক
২৪ মার্চ, ২০২০ ০৩:০৯ অপরাহ্ণ

ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন । আপনি ভালো থাকলে ভালো থাকবে দেশ । চমৎকার নির্মাণের জন্য লাইক, কমেন্ট ও রেটিংসহ শুভেচ্ছা ও ভালবাসা রইল । আমার বাতায়ন বাড়িতে আমন্ত্রণ রইল ।