#### শীতকালে কি দই খাওয়া ঠিক?

মো; ফজলুল হক ২৯ নভেম্বর,২০২০ ২৮৪ বার দেখা হয়েছে ১৭০ লাইক কমেন্ট ৫.০০ (৪৭ )

প্রকৃতিতে হালকা শীতের আমেজ অনুভূত হচ্ছে। বিশেষ করে ভোরে এবং রাতের দিকে বেশি ঠান্ডা অনুভূত হয়। শীতকাল মানে নানা ধরনের রমুখরোচক খাবার খাওয়ার দিন। তবে এটা মনে রাখা দরকার, এ সময় সব ধরনের খাবার খাওয়া ঠিক নয়।
দই অনেকেরই পছন্দের একটি খাবার। বিশেষ করে গরমের সময় অনেকেই খাওয়ার পর একটু দই খেতে ভালোবাসেন। তবে এটি তুলনামূলকভাবে ঠান্ডা খাবার হওয়ায় অনেকেই শীতকালে দই এড়িয়ে চলেন। সাধারণভাবে মনে করা হয়, শীতকালে দই খেলে ঠান্ডা লাগা এবং গলাব্যথার মতো সমস্যা দেখা দিতে পারে। আসলেই এ ধারণাটি কতটা ঠিক?
আয়ুর্বেদ চিকিৎসা যা বলছে

আয়ুর্বেদ চিকিৎসা অনুসারে, শীতকালে দই না খাওয়াই ভালো। কারণ দই আমাদের গ্ল্যান্ড নিঃসরণ বাড়িয়ে দেয়। এর ফলে মিউকাস নিঃসরণও বেড়ে যেতে পারে। বিশেষ করে যাদের শ্বাসপ্রশ্বাসের সমস্যা রয়েছে, তাদের শীতকালে মোটেও দই খাওয়া উচিত নয়। এছাড়া যাদের সাইনাস এবং সর্দি-কাশির সমস্যা আছে তারা শীতকালে দই এড়িয়ে চলুন। আয়ুর্বেদের পরামর্শ অনুসারে শীতের রাতে কখনোই দই খাওয়া ঠিক নয়।
বিজ্ঞান কী বলছে
দইয়ে প্রচুর পরিমাণে ভলো ভ্যাকটেরিয়া থাকায় এটি স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারী। দই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতেও সহায়তা করে। দইয়ে প্রচুর পরিমাণে ক্যালসিয়াম, ভিটামিন বি১২ এবং ফসফরাস আছে। বিজ্ঞানের ভাষায়, শীতকালে দই খেলে স্বাস্থ্য ভালো থাকবে। তবে শ্বাসপ্রশ্বাসের সমস্যা থাকলে বিকেল ৫টার পর দই খেতে বারণ করছেন বিজ্ঞানীরাও। কারণ এর ফলে মিউকাস বৃদ্ধি পেয়ে অ্যালার্জি ও অ্যাজমার সমস্যা হতে পারে।
অনেক বিশেষজ্ঞ বলছেন, দইয়ে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি থাকায় এটি সর্দি-কাশিতে নিরাময়ে বেশ কার্যকরী। কিন্তু সেক্ষেত্রে দই ঘরের তাপমাত্রায় রেখে খাওয়া উচিত। ফ্রিজে রাখা ঠান্ডা দই খাওয়া ঠিক নয়। এছাড়া এ সময়ে সর্দি এবং জ্বরে আক্রান্ত হলে দই খাওয়া ঠিক নয়।

মতামত দিন
সাম্প্রতিক মন্তব্য
মোস্তাফিজুর রহমান
০৬ ডিসেম্বর, ২০২০ ০৮:৪১ পূর্বাহ্ণ

আপনার জন্য শুভকামনা রইল । আমার এ পাক্ষিকে কনটেন্ট দেখে আপনার মূল্যবান মতামত ও রেটিং প্রদান করার জন্য বিনীত অনুরোধ করছি


মোসাঃশারমিন আক্তার
৩০ নভেম্বর, ২০২০ ০৭:৩৮ অপরাহ্ণ

আপনার জন্য শুভকামনা রইল । আমার এ পাক্ষিকে কনটেন্ট দেখে আপনার মূল্যবান মতামত ও রেটিং প্রদান করার জন্য বিনীত অনুরোধ করছি।


আব্দুল্লাহ আত তারিক
৩০ নভেম্বর, ২০২০ ০৫:৫১ অপরাহ্ণ

শুভ সন্ধ্যা, আপনার কল্যাণ হোক। আপনার নির্মিত ব্লগে -এ পূর্ণ রেটিং, লাইক, কমেন্টসহ শুভকামনা রইল। এই পাক্ষিক-এ নির্মিত আমার কনটেন্ট #মংড়ুর_পথে দেখার জন্য বাতায়ন বাড়ি আমন্ত্রণ রইল।


রেহানা আক্তার ঝর্ণা
৩০ নভেম্বর, ২০২০ ১২:৪৪ অপরাহ্ণ

লাইক ও পূর্ণ রেটিংসহ আপনার জন্য শুভ কামনা রইলো। এ পাক্ষিকে আমার আপলোডকৃত কনটেন্ট দেখে লাইক ও রেটিংসহ আপনার মতামত দেওয়ার জন্য বিনীত অনুরোধ করছি।


অচিন্ত্য কুমার মন্ডল
৩০ নভেম্বর, ২০২০ ১১:৩৫ পূর্বাহ্ণ

সন্মানিত সহকর্মী আমার এ পাক্ষিকের কন্টেন্ট(৪৫ তম) +ব্লগ(৭২ তম) দেখে ও পরামর্শসহ রেটিং প্রদানের জন্য অনুরোধ করছি। ধন্যবাদ কন্টেন্টঃ https://www.teachers.gov.bd/content/details/777226 ব্লগ- https://www.teachers.gov.bd/blog-details/584544


মোঃ মেহেদুল ইসলাম
৩০ নভেম্বর, ২০২০ ০৬:১৪ পূর্বাহ্ণ

আসসালামু আলাইকুম। শ্রদ্ধেয় প্যাডাগজি রেটার, এডমিন, সেরা কনটেন্ট নির্মাতা, শিক্ষক বাতায়নের সকল শিক্ষক- শিক্ষিকা ও আইসিটি জেলা অ্যাম্বাসেডর স্যারদের জানাই আন্তরিক শুভেচ্ছাওঅভিনন্দনhttps://www.teachers.gov.bd/content/details/780113